আজ ৯ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৩শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

মেসি-রোনালদো ভিন্ন গ্রহের: নেইমার

প্যারিস সেন্ট জার্মেইতে (পিএসজি) তিন মৌসুম চলছে নেইমারের। প্রথম দুই মৌসুমে বার বার লড়াই করতে হয়েছে ইনজুরির সঙ্গে। ড্রেসিং রুমে দ্বন্দ্বের কারণে শিরোনামেও এসেছেন। সব কিছু ছাপিয়ে ফ্রান্সের দলটিকে প্রথমবারের মতো চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালে নিয়ে এসেছেন ব্রাজিলের সবচেয়ে বড় তারকা নেইমার। চলতি মৌসুমে লিগ ওয়ান, ফ্রেঞ্চ কাপ, লিগ কাপ ও ফ্রেঞ্চ সুপার কাপের শিরোপা নিজেদের করে নিয়েছে পিএসজি। এবার অপেক্ষা ইউরোপ সেরার মুকুট পড়ার।

এতগুলো শিরোপা হাতের সামনে থাকার পরও নেইমারের দুর্ভাগ্য এবারের মৌসুমে দেয়া হবে না ব্যালন ডি’ অর। যদিও সম্মানের এই পুরস্কার পেতে বাড়তি আগ্রহ আছে সাম্বা ফরোয়ার্ডের। দীর্ঘদিন ধরে বর্ষসেরা ফুটবলারের এই ট্রফি পেয়ে আসছেন লিওনেল মেসি ও ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। নেইমার মনে করেন এক দশক ধরে দুই মহাতারকা ছিলেন সবার ধরা ছোঁয়ার বাইরে। তাইতো এই পুরস্কার ভাগাভাগি করেছেন নিজেরা।

রোববার রাতে চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালে বায়ার্ন মিউনিখের বিপক্ষে মাঠে নামবে প্যারিস সেন্ট জার্মেই। তার আগে ডেইলি স্টারের মুখোমুখি হয়েছিলেন নেইমার।

Advertisements

ব্রিটিশ গণমাধ্যমকে তিনি বলেন, ‘মেসি এবং রোনালদো দুইজনই দাপট দেখিয়েছেন কারণ, গেল ১০ বছর তারা ছিলেন ভিন্ন গ্রহের। অবশ্যই ব্যালন ডি অ’র নিজের করতে পারাটা অনেক সম্মানের।’

সেরা ফুটবলারের ট্রফি জিততে হলে দেখাতে হবে মাঠের পারফরম্যান্স। হতে হবে সবার থেকে আলাদা। সেটিও জানা আছে ২৮ বছর বয়সী এই তারকার।

‘খেয়াল রাখতে হবে আপনি কী জয় করলেন আর মাঠে আপনার দলকে কতটুকু সহায়তা করতে পারলেন। আসলে সবকিছু নির্ভর করে এগুলোর উপর। এটাই প্রধান লক্ষ্য থাকা উচিৎ। আমিও সেটাই করছি।’ যোগ করেন নেইমার।

২০১৭ সালে বার্সেলোনা ছেড়ে ২২২ মিলিয়ন ইউরোতে নেইমার যোগ দেন পিএসজিতে। হয়ে যান ফুটবলের দল বদলের ইতিহাসের সবচেয়ে দামী খেলোয়াড়। স্প্যানিশ দলটির হয়ে আগেও হয়েছেন ইউরোপ সেরা। এবার অপেক্ষা ফ্রেঞ্চ চ্যাম্পিয়নদের হয়ে ট্রফি জেতা। তার মধ্যে এবারই প্রথমবারের মতো ফাইনাল খেলছে তার দল।

নেইমার বলেন, ‘চ্যাম্পিয়নস লিগে জয় পাওয়াটা অবশ্যই বিশেষ। আমি সেটা জানি। তবে পিএসজির হয়ে জেতাটা হবে এক নতুন ইতিহাস। আর ইতিহাস গড়তেই আমার এখানে আসা।’

 

     এই বিভাগের আরও খবর দেখুনঃ