আজ ৯ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৩শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

প্রেমের বিয়ের বিয়োগান্তক পরিণতি

ময়মনসিংহের আবদুস সামাদের মেয়ে লামিয়া লাইজু (২০)।ধোবাউড়া উপজেলার ঘোষগাঁও গ্রামের ব্যবসায়ী শাহাজ উদ্দিনের ছেলে মতিউর রহমান শরিফের সাথে  ফেসবুকের মাধ্যমে পরিচয় হয়। এরপর দুজনের মাঝে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠলে চলতি বছরের ১১ মার্চ পারিবারিকভাবে দুজনের বিয়ে হয়।

পরদিন সকালে ১৫  আগস্ট লাইজুর ঝুলন্ত লাশ পেলে ধোবাউড়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসেন শরিফ ও তার পরিবারের লোকজন। কর্তব্যরত ডাক্তার লাইজুকে মৃত ঘোষণা করেন।তখন থেকে শুরু হয় মৃত্যু নিয়ে রহস্য।

গৃহবধূর মৃত্যুর খবরটি জানাতে থানায় আসেন শরিফের বাবা শাহাজ উদ্দিন। ততক্ষণে মৃত্যু নিয়ে তোলপাড় শুরু হলে তাকে আটক করে থানা পুলিশ।

Advertisements

শরিফের পরিবারের দাবি, স্বামীর সঙ্গে অভিমান করে লাইজু আত্মহত্যা করেছেন। এদিকে লাইজুর বাবা অভিযোগ করেন, যৌতুকের জন্য প্রায়ই নির্যাতনের শিকার হতো লাইজু। অবশেষে তাকে হত্যা করে লাশ ঝুলিয়ে রাখা হয়েছে।

লাইজুর বাবা আবদুস সামাদ বাদী হয়ে এ ঘটনায় ধোবাউড়া থানায় একটি মামলা করেছেন। এ ব্যাপারে ধোবাউড়া থানার ওসি আবুল কালাম আজাদ জানান, প্ররোচনায় আত্মহত্যার একটি মামলা নেয়া হয়েছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্টের পর বিস্তারিত বলা  যাবে।

     এই বিভাগের আরও খবর দেখুনঃ