আজ ৯ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৩শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

ট্রায়াল শেষের আগেই টিকার প্রয়োগ চীনে

‌রাশিয়াকেও ছাপিয়ে গেল চীন। চীনা সংস্থা সিনোফার্মের তৈরি করোনা ভ্যাকসিনের ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল চলছে এখনও। মানবদেহে ব্যবহারের অনুমতি মেলেনি। ছাড়পত্রের তোয়াক্কা না করেই টিকার ব্যবহারিক প্রয়োগ শুরু করেছে চীন।

প্রশ্ন ওঠায় বেইজিং বলতে শুরু করেছে, যাদের ঝুকি বেশি তাদের টিকা দেওয়া হচ্ছে। সবই হচ্ছে চীনের ভ্যাকসিন ম্যানেজমেন্ট আইন মেনেই।

সিনোফার্মের করোনা টিকার তৃতীয় পর্বের ট্রায়াল শুরু হবে পেরু, মরক্কো ও আর্জেন্টিনায়। অথচ ২২ জুলাই থেকে তা ব্যবহার করছে চীন। জরুরি ভিত্তিতে অসংখ্য মানুষকে টিকা দেওয়া হয়েছে।

Advertisements

সাংহাইয়ের ইমিউনোলজিস্ট তাও লিনার কথায়, লক্ষাধিক মানুষের শরীরে টিকা দেওয়া হয়েছে। কিন্তু সংখ্যাটা নিশ্চিত করে বলা অসম্ভব। কারণ, হিসেব রয়েছে চীনের সেনাবাহিনীর কাছে। তারা তা প্রকাশ করবে না।

ওদিকে, চীনের করোনাভাইরাস ভ্যাকসিন ডেভেলপমেন্ট টাস্ক ফোর্সের প্রধান ঝেং ঝংউইয়ের কথায়, ‘আগাম অনুমতি নিয়েই টিকা দেওয়া হচ্ছে। পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া, তার মোকাবিলা, ক্ষতিপূরণ দেওয়া— এসবের বন্দোবস্ত করা হয়েছে। টিকা যারা নিয়েছেন তাদের জ্বর আসেনি। কারও কারও পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দিচ্ছে।’‌

ঝেং আরো জানান, পরবর্তী পদক্ষেপ শরৎ ও শীতে সংক্রমণ আটকানো। টিকা সহজলভ্য করা হবে। বিশেষত খাদ্য, পরিবহণ ও অন্যান্য কর্মীদের জন্য।‌‌ আজকাল

     এই বিভাগের আরও খবর দেখুনঃ