আজ ৩০শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৩ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

গৃহবধূকে চুল কেটে মারপিটের অভিযোগ

যৌতুক না পেয়ে শ্বশুরবাড়ির লোকজন মারধর করে এক গৃহবধূর নার্গিস খাতুন (৩০) চুল কেটে দিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।প্রতিবেশীরা ওই গৃহবধূকে সিরাজগঞ্জ শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করেন।

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে উল্লাপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দীপক কুমার দাস জানান, ‘এগারো বছর আগে গ্রামের শফিকুল ইসলামের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্কে বিয়ে হয় নার্গিসের। যৌতুক না পাওয়ায় এই বিয়ে শুরু থেকেই মেনে নিতে পারেনি শফিকুলের বাবা হাবিবুর রহমান। যৌতুকের দাবিতে নার্গিসের ওপর প্রায়ই অমানুষিক নির্যাতন চালাতেন তিনি। সর্বশেষ রবিবার রাতে নার্গিসকে বেধড়ক মারধর করা হয়। এরপর বটিদা দিয়ে নার্গিসের চুল কেটে দেন শ্বশুর হাবিবুর, ভাসুর জামাল ও শাহাদত এবং স্ত্রীরা। সোমবার দুপুরে গ্রামবাসী নার্গিসকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেন। পুলিশ সেখানে তাকে দেখতে যায়। মামলা না হলেও পুলিশ রাতে এ ঘটনায় হাবিবুরকে আটক করে।’

ভিকটিমের স্বামী শফিকুল ইসলাম বলেন, ‘ভালোবেসে নিজের পছন্দের মেয়েকে বিয়ে করায় আমার বাবা ভীষণ ক্ষুব্ধ। এ কারণে সে ও ভাই-ভাবি মিলে আমার ও নার্গিসের ওপর গত এগারো বছর যাবৎ অমানুষিক নির্যাতন করছে।’

Advertisements

জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক মেডিক্যাল অফিসার (আরএমও) ডা. ফরিদুল ইসলাম জানান, নার্গিসের শরীরে আঘাতের চিহ্ন আছে। চিকিৎসা পেয়ে বর্তমানে সুস্থ আছেন তিনি।

     এই বিভাগের আরও খবর দেখুনঃ